কোভিড-১৯ প্রতিরোধে জনসচেতনতা ও স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালনে বরিশালে মোবাইল কোর্ট অভিযান


বরিশাল ব‍্যুরো

  • Save


আজ ১০/১১/২০২০ তারিখ বরিশাল জেলায় কোভিড-১৯ প্রতিরোধে “No Mask, No Service” প্রচারণা বাস্তবায়ন ও স্বাস্থ্য বিধি প্রতিপালনে মোবাইল কোর্ট ও সচেতনতা কার্যক্রমে ৩৫ ব্যাক্তি ও ৫ প্রতিষ্ঠান কে ২৯,৮০০/- টাকা অর্থ দন্ড প্রদান করা হয়।
বরিশাল জেলায় কোভিড-১৯ এর সম্ভাব্য দ্বিতীয় সংক্রমণ প্রতিরোধে জেলা প্রশাসক জনাব এস এম অজিয়র রহমান জেলার সর্বত্র স্বাস্থ্য বিধি অনুসরণে “No Mask, No Service–মাস্ক পরুন, সেবা নিন” শীর্ষক প্রচারণার পদক্ষেপ গ্রহণ করেন এবং তা বাস্তবায়নে ব্যাপক উদ্যোগ নেন। তার অংশ হিসাবে আজ বরিশাল মহানগরসহ সমগ্র জেলায় একযোগে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা, মাস্ক বিতরণ ও সচেতনতা কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়। 
*বরিশাল মহানগর*
বরিশাল মহানগরে তিনটি মোবাইল কোর্টের টিম অভিযান পরিচালনা করেন। এর মধ্যে সদররোড ও গির্জামহল্লা এলাকায় মাস্ক এর উপর মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন *এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট রুমানা আফরোজ*। এসময় সতর্ক করার পাশাপাশি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে নো মাস্ক, নো সার্ভিস ব্যানার বিতরণ করা হয়। দণ্ডবিধি ১৮৬০ এর ১৮৮ ধারা মোতাবেক ৪ জন ব্যক্তি কে ১১০০ টাকা অর্থ দন্ড প্রদান করা হয়। উক্ত অভিযানে সহযোগিতায় বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের একটি টিম।
মহানগরের সদর রোড, কাকলীর মোড় ও টাইন হল এলাকায় মোবাইল কোর্ট অভিযান পরিচালনা করেন জেলা প্রশাসনের *নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ জিয়াউর রহমান*। এসময় জনসাধারণকে ও বিভিন্ন দোকানে ‘নো মাস্ক নো সার্ভিস’ ব্যানার ও বিনামূল্যে মাস্ক বিতরণ করা হয়। স্বাস্থ্যবিধি না মানায় এ সময় নগরীর ৫টি দোকান ও শপিংমলে মোট ৪০০০ টাকা অর্থদণ্ড দেওয়া হয়।আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় সহায়তা করেন বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের একটি টিম।
মেডিকেল কলেজ, চৌমাথা ও নথুল্লাবাদ এলাকায় অপর একটি মোবাইল কোর্ট অভিযানে নেতৃত্ব দেন জেলা প্রশাসনের *নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ অাতাউর রাব্বী*। এসময় জনসাধারণকে ও বিভিন্ন দোকানে ‘নো মাস্ক নো সার্ভিস’ ব্যানার ও বিনামূল্যে মাস্ক বিতরণ করা হয়। স্বাস্থ্যবিধি না মানায় এ সময় নগরীর বিভিন্ন জায়গায় ৭ জনকে মোট ৪৭০০ টাকা অর্থদণ্ড দেওয়া হয়।আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় সহায়তা করেন বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের একটি টিম।
*বাকেরগন্জ*
মাস্ক পরিধান ও জনসাধারণকে স্বাস্থ্য বিধি অনুসরণে সচেতন ও উদ্বুদ্ধ করতে বাকেরগঞ্জ  উপজেলার বাসস্ট্যান্ডে, খেয়াঘাটে, পৌর মার্কেটে, উপজেলা পরিষদের সম্মুখে মোবাইল কোর্ট অভিযান পরিচালনা করা হয়। অভিযান পরিচালনা করেন *উপজেলা নির্বাহী অফিসার মাধবী রায় ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো তরিকুল ইসলাম*। এসময় জনসাধারণকে ও বিভিন্ন দোকানে  বিনামূল্যে মাস্ক বিতরণ করা হয়।
*বাবুগঞ্জ*
বরিশাল জেলার বাবুগঞ্জ উপজেলা পরিষদ চত্ত্বর ও সংলগ্ন এলাকায় করোনা ভাইরাস মহামারী চলাকালীন স্বাস্থ্য বিধি পরিপালন ও মাস্ক পরিধান নিশ্চিত করার লক্ষ্যে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন জনাব *মোঃ আমীনুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট, বাবুগঞ্জ*, বরিশাল। মোবাইল কোর্ট পরিচালনাকালীন বাবুগঞ্জ উপজেলা পরিষদ চত্ত্বরে অবস্থিত বিভিন্ন কার্যালয়ের সামনে আগত সেবাগ্রহীতাদের স্বাস্থ্যবিধি পরিপালন করার লক্ষ্যে সচেতন করা হয় এবং তারপরও যারা মাস্ক পরিধান করেনি তাদেরকে সংক্রামক রোগ (প্রতিরোধ, নিয়ন্ত্রণ ও নির্মূল) আইন, ২০১৮ অনুযায়ী ৬ ব্যক্তিকে ৫০০ টাকা করে ৩০০০ টাকা অর্থদণ্ড করা হয় এবং হিজলা বরিশাল মহাসড়কে মাস্ক পরিধান ছাড়াই যাত্রী নিয়ে বাসে যাত্রী পরিবহন করায় একটি বাসের চালককে একই আইন অনুযায়ী ৩০০০ টাকা অর্থদণ্ড করা হয়। 
এরপর হিজলা বরিশাল মহাসড়কে স্বাস্থ্যবিধি অমান্য করে মাহিন্দ্রা আলফা গাড়িতে মাস্ক পরিধান ছাড়াই যাত্রী পরিবহনকালে মোবাইল কোর্টকে অসহযোগিতা করায় এবং আদেশ অমান্য করায় চালককে সড়ক পরিবহন আইন, ২০১৮ অনুযায়ী ১০০০০ টাকা অর্থদণ্ড করা হয়। 
মোবাইল কোর্ট চলাকালীন অর্থদণ্ড প্রাপ্ত ব্যক্তিদের উপজেলা প্রশাসন, বাবুগঞ্জ, বরিশাল তত্ত্বাবধানে তৈরিকৃত মাস্ক পরিয়ে দেয়া হয়।  এ সময় করোনা ভাইরাস (কোভিড-১৯) মহামারী চলাকালীন বারবার সাবান দিয়ে হাত ধোয়া, নিয়মিত মাস্ক পরিধান করা ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে চলাফেরা করার জন্য সকলকে অনুরোধ করা হয়।
মোবাইল কোর্টকে আইনানুগ সহযোগিতা করে বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের বিমানবন্দর থানার এস. আই জনাব মোঃ রায়হানুর রহমানসহ পুলিশ ফোর্স। এ সময় স্থানীয় বীর মুক্তিযোদ্ধাবৃন্দ, গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও বাবুগঞ্জ প্রেসক্লাব এবং বিমানবন্দর প্রেসক্লাবের সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
*গৌরনদী*
গৌরনদী  উপজেলার বাসস্ট্যান্ডে মোবাইল কোর্ট অভিযান পরিচালনা করা হয়। অভিযান পরিচালনা করেন *সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ফারিহা তানজিন*। এসময় জনসাধারণকে ও বিভিন্ন দোকানে  বিনামূল্যে মাস্ক বিতরণ করা হয়।এছাড়াও স্বাস্থ্যবিধি না মানায় এ সময় ৬ ব্যক্তিকে মোট ২০০০ টাকা অর্থদণ্ড দেওয়া হয়।আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় সহায়তা করেন গৌরনদী মডেল থানার   একটি টিম।
*হিজলা*
হিজলা উপজেলার গুয়াবাড়িয়া ইউনিয়নের কাউরিয়া বাজারে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে ও মাস্ক পরিধানে উদ্বুদ্ধ  করতে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হয়। এ সময় মাস্ক বিতরণ ও সংক্রামক রোগ  (প্রতিরোধ,নিয়ন্ত্রণ ও নির্মূল) আইন, ২০১৮ অনুযায়ী ১০ জনকে ২০০০ টাকা জরিমানা করা হয়। অভিযানে নেতৃত্ব দেন *উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট জনাব বকুল চন্দ্র কবিরাজ*।
অন্যান্য উপজেলায়ও যথারীতি *”No Mask, No Service”* বাস্তবায়ন ও স্বাস্থ্য বিধি অনুসরণে সচেতনতা কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়।  এ প্রসঙ্গে *জেলা প্রশাসক ও জেলা ম্যাজিস্ট্রেট জনাব এস এম অজিয়র রহমান বলেন*, বরিশালবাসীর কল্যাণে কোভিড-১৯ এর সম্ভাব্য দ্বিতীয় সংক্রমণ প্রতিরোধে জেলা প্রশাসনের এ প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »
Share via
Copy link
Powered by Social Snap