নওগাঁর আত্রাইয়ে গৃহবধু গলায় ফাঁস দিয়ে মৃত্য

< 1 min read

প্রতিনিধি নওগাঁ

  • Save

নওগাঁর আত্রাইয়ে পারিবারিক কলহে অন্তসত্তা বধু চায়না রানী (২০) গলায় ফাঁস দিয়ে মৃত্যর খবর পাওয়া গেছে ঘটনাটি উপজেলার হাটকালুপাড়া ইউনিয়নের বড়দাপাড়া গ্রামে সোমবার রাতে ঘটেছে। ময়না তদন্তের জন্য লাশ উদ্ধারকরে নওগাঁ মর্গে পাঠিয়েছে আত্রাই থানা পুলিশ।
পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে, বিয়ের পর হতে চায়না রাণীকে শারীরিক ও মানসিকভাবে নির্যাতন করে আসছিলো পরিবারের লোকজন। মেয়ের পরিবারের ধারণা ছিলো সন্তান হলে তাদের সমস্যাগুলো লাঘব হবে কিন্তু ৭ মাসের অন্তসত্তা হবার পরও বিভিন্ন নির্যাতনের স্বীকার হতে হয়েছে মৃত চায়না রাণীকে।
অন্যান্য দিনের ন্যায় সোমবার রাতে চায়নার স্বামী নির্যাতন করে রুগী দেখার নাম করে বাহিরে চলে গেলে জীবনের মানে খুজে না পেয়ে শয়নঘরে ফ্যানের সাথে ওরনা জড়িয়ে আত্নহত্যা করে চায়না। স্বামী ষষ্ঠি কুমার আনুমানিক রাত্রি ১টার দিকে বাড়ীএসে ঘড়ের দরজা ভেতর থেকে আটকানো দেখে এবং ডাকাডাকি করলে কোন সাড়া না পেয়ে জানালা দিয়ে উঁকি দিয়ে ফ্যানের সাথে চায়নাকে ঝুলতে দেখে। চিতকার শুনে প্রতিবেশিরা এসে ঘড়ের টিন খুলে মৃতদেহ উদ্ধার করে। বিষয়টি নিয়ে চায়নার আত্নীয় ও প্রতিবেশিরা বিভিন্ন প্রশ্ন তুলেছে।
আত্রাই থানা ওসি মোসলেম উদ্দিন বলেন, ময়না তদন্তের জন্য লাশ নওগাঁ মর্গে পাঠানো হয়েছে। রিপোট এলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Share via
Copy link
Powered by Social Snap