বানারীপাড়ায় আয়শা (১২) নাবালিকাকে ধর্ষণ করে হত্যা

< 1 min read

সবুজ রায়ঃ বানারীপাড়া প্রতিনিধি।

  • Save

বরিশাল জেলার বানারীপাড়া থার সৈয়দকাঠী ইউনিয়ন এর আউয়ার বাজার সংলগ্ন দুলাল লাহাড়ীর মেয়ে আয়শা (১২)কে ধর্ষণ করে হত্যা করে হয়েছে। ধর্ষণ এর পরে সবাইকে বলে দিবে বলায় তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে পায়ে পাথর বেধে আউয়ার খালে ফেলা দেয়া হয়েছে এমন অভিযোগে ৪ জনকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে। উল্লেখ রোজ মঙ্গলবার সকালে ৭ শ্রেণীর ছাত্রী আয়শা নিখোঁজ হয়।পরে তার নিকট আত্মীয় সজনেরা বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজি করে। অবশেষে আয়শার বাড়ীর প্রতিবেশী আবুল মৃধার ধানের খৈলানের সিদ্দিক মিয়ার ঘরের পাশে বুধবার সকালে খুজে পায় আয়শার পায়ের জুতা যা দেখে স্বজনেরা নিশ্চিত করে । এই সুত্র ধরে সিদ্দিক এর ছেলে সাব্বির (২০)সাইদ (১৪)ও সিদ্দিকের স্ত্রী ননুফা বেগমকে ইউনিয়ন পরিষদে নিয়ে জিজ্ঞাসা করলে সিদ্দিক আয়শার লাশ পায়ে ইট ও গলায় বালতি বেধে পার্শ্ববর্তী খালে ফেলে দেয় বলে স্বীকার করে। পরে পুলিশ এসে এই ৪ জনকে গ্রেফতার করে। বরিশাল ব্রাঞ্চ এর ফায়ার সার্ভিস বুধবার দুপুর থেকে চেষ্টা চালিয়ে যেতে থাকে। লাশ এর খোজ না মিলায় পুনরায় বানারীপাড়া থানা থেকে অভিযুক্ত সিদ্দিক কে আবার ঘটনা স্থলে এনে যেখানে লাশ ফেলে দেয়া হয়েছিলো সেই যায়গা দেখানোর পরে পুনরায় ফায়ার সার্ভিস এর লোক বাজারের, মাছ বাজার এর পাশে খালের ভিতরে পায়ে ইট ও গলায় বালতি দেয়া আয়শার লাশ উপরে তুলতে সক্ষম হয়। পরে পুলিশ লাশ বানারীপাড়া থানায় নিয়ে যাওয়া । এলাকায় জনগন উক্ত হত্যার ফাঁসীর দাবি করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »
Share via
Copy link
Powered by Social Snap