Logo Design

শাখাতী উচ্চ বিদ্যালয়ে হীরক জয়ন্তী ২৯ ফেব্রুয়ারী

2 minutes

প্রশান্ত কুমার রায়, লালমনিরহাট প্রতিনিধিঃ

  • Save

বাংলাদেশে যে কয়েকটি প্রাচীন বিদ্যালয় শিক্ষার আলো জ্বালিয়ে আজ মহীরুহ প্রতিষ্ঠানে পরিণত হয়েছে তাদের মধ্যে অন্যতম এক বিদ্যাপীঠের নাম শাখাতী উচ্চ বিদ্যালয়।

লালমনিরহাট জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার অন্যতম প্রাচীন বিদ্যাপীঠ শাখাতী উচ্চ বিদ্যালয়ের হীরক জয়ন্তী (৬০ বছর পূর্তি) এবং সাবেক ও বর্তমান সকল শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে পুনর্মিলনী আসছে ২৯ ফেব্রুয়ারী বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে এক জাঁকজমকপূর্ণ অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত থাকবেন সমাজকল্যাণ মন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ। এ উপলক্ষে আয়োজক কমিটি ব্যাস্ত সময় পার করছে।

শাখাতী উচ্চ বিদ্যালয়ের ৬০ বছর পূর্তি ও সাবেক শিক্ষার্থীদের পুনর্মিলনীকে সুন্দর ও সফলভাবে অনুষ্ঠিত করার লক্ষ্যে বিভিন্ন কর্ম পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। এছাড়া প্রত্যেক ব্যাচ প্রতিনিধিকে আন্তরিকতার সঙ্গে কাজ করে এ অনুষ্ঠানকে সফল করতে আহ্বান জানানো হয়ছে । শুধু তাই নয়, ৬০ বছর পূর্তি উপলক্ষ্যে এক স্মরণিকা প্রকাশের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

লালমনিরহাট জেলার ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শাখাতী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠার দীর্ঘ ৬০ বছর পর প্রথম হীরক জয়ন্তী পুণর্মিলনী উৎসব আয়োজন করা হয়েছে।

আয়োজক কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক গোবিন্দ চন্দ্র অধিকারী জানান, বিদ্যালয়টি প্রতিষ্ঠার ৬০ বছর পর হওয়ার পর প্রথম হীরক জয়ন্তী পুণর্মিলনী উৎসব আয়োজন করা হয়েছে। জীবনের মূল্যবান অধ্যায় ছাত্রজীবন যার অনেকটা সময় আমরা এ বিদ্যালয়ে কাটিয়েছি। সময়ের স্রোতে আমরা এ বিদ্যালয়ের গন্ডি পেরিয়ে এসেছি। কিন্তু সেই স্মৃতি আমাদের মনে গেঁথে রয়েছে। তাই সেই মূল্যবান স্মৃতি চারনের উদ্দেশ্যে আমরা এ উৎসবের উদ্যোগ নিয়েছি। এ অনুষ্ঠানকে সফল করতে সকলের উপস্থিতি এবং সহযোগিতা কামনা করেছেন তিনি।

শাখাতী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রাক্তন ছাত্র ও বর্তমানে কালীগঞ্জ উপজেলার যুবলীগের তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক ও ভাইস চেয়ারম্যান শ্রমিক লীগ রংপুর মহানগর এর আবু হানিফ চয়ন জানান, কথায় বলে, ‘দিন যায় কথা থাকে’। কথা থাকুক বা নাই থাকুক ফেলে আসা অতীত দিনগুলোর স্মৃতি চিরদিন হৃদয়ের মানসপটে অমস্নান হয়ে থাকবে। তাই আজ জীবনের এতগুলো বছর পার করার পরও, ফেলে আসা জীবনের সেই হারিয়ে যাওয়া দিনগুলোর কথা মনে পড়ে যায়। মনে পড়ে যায়, আমার শাখাতী উচ্চ বিদ্যালয়ের জীবনের স্মৃতির কথা। যার সাথে ওতপ্রোতভাবে জড়িয়ে আছে আমার শিক্ষা জীবন। স্কুল, স্যার, বন্ধু, সবকিছুই আবার ফিরে পেতে ইচ্ছে করে। কিন্তু তা তো হওয়ার নয়। সময়ের স্রোত অতীত ফিরিয়ে দেয় না। তাই স্মৃতি হাতড়ে বেঁচে থাকতে হয় জীবনভর।

ফিরে চলি শাখাতী উচ্চ বিদ্যালয়ে মেতে উঠি হীরক জয়ন্তী উৎসবে।

Translate »
Share via
Copy link
Powered by Social Snap