ইস্ট ওয়েষ্ট ইউনিভার্সিটির ছাত্র ছাত্রীদের সহযোগিতায় ৩০০ শীতার্ত মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ।

0
249

মোঃ রোমান আকন্দ, গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি। ইস্ট ওয়েষ্ট ইউনিভার্সিটির ছাত্র ছাত্রীদের সহযোগিতায় ৩০০ শীতার্ত মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয়েছে। শনিবার অরিন গাড়ীর মালিক খন্দকার ফজলুল করিম আশার ছেলে আরাফাত খন্দকার বন্ধুদের সহযোগিতায় ধুতি চোরা দাখিল মাদ্রাসার মাঠে কম্বল বিতরণ করে থাকেন।

এ সময় তারা নিজে থেকে উপস্থিত হয়ে শীতার্তদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ করেন।শীতের কুয়াশা ভেঙে গাইবান্ধা সদর উপজেলার গিদারী ইউনিয়নের ধুতি চোরা দাখিল মাদ্রাসা মাঠে আসেন বয়োবৃদ্ধ লোকজন।তারা বলেন গেল কয়েক মাস আগে রাস্তার কাজের জন্য আমাদের রাস্তার দু’ধারের ঘরবাড়ি ভেঙ্গে যায় এছাড়াও এলাকার মানুষের আয়-রোজগারও একেবারে নেই। গ্রামের গরিবদের শীতের কষ্ট দেখার লোকও নেই। যারা আমাদের মতো গরিব মাইনষের খোঁজ নিয়ে শীতের কাপড় (কম্বল) দিচ্ছে তাদের আল্লাহ বাঁচিয়ে রাখুক। তাদের লেখাপড়া ও আয়-রোজগারে বেশি বেশি বরকত হোক।’

অন্যদিকে আরেকজন বলেন, ‘তীব্র শীতে কম্বলটা খুব উপকারে আসবে। তাই আশীর্বাদ করি( ইস্ট ওয়েষ্ট ইউনিভার্সিটির) ছাত্র ছাত্রীদের আরো বড় হোক তারা। দেশ ও জাতির কল্যাণে ছড়িয়ে পড়ুক বাংলার আনাচে কানাচে।কম্বল বিতরণ কালে উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ গিদারী ইউনিয়ন শাখার সাধারন সম্পাদক নজরুল , সাইফুুর রহমান ( ইউঃপি সদস্য ) জুয়ের মিয়াজী(শিক্ষক), আলহাজ্জ নুরুন্নবী সরকার ,আঃ ছাত্তার সহ আরও অনেকে। কম্বল বিতরণ ও তালিকা তৈরিতে সহায়তা করেন সাইফুর রহমান।