গায়েবি মামলায় হয়রানির শিকার মেহেন্দিগঞ্জের এক পরিবার

0
83

মেহেন্দিগঞ্জ প্রতিনিধি : মেহেন্দিগঞ্জের উত্তর উলানিয়া ইউনিয়নে কোনো ঘটনাই ঘটেনি, তারপরও গায়েবি মামলায় হয়রানির শিকার একটি পরিবার। চলতি মাসের প্রথম সপ্তাহে ওই গায়েবি মামলাটি আদালতে দায়ের করেন উপজেলার উলানিয়া উত্তর ইউনিয়নের নয়াখালী গ্রামের রফিকুল ইসলাম কবিরাজ (৬০)।
ওই মামলায় হয়রানির শিকার পরিবারের লোকজন হচ্ছেন বাদির বাড়ির সাজাহান রাঢ়ী, নান্নু রাড়ী, আফসার হোসেন রাঢ়ীসহ ৫ জন।
মামলার নালিশি অভিযোগে বাদী উল্লেখ করেন, গত ১/৬/২০২১ তারিখ বিকাল আনুমানিক ৪ঘটিকায় আসামিরা তাকে অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করে দা, চেনা, লোহার রড ও লাঠিসোটা নিয়ে হত্যার উদ্দেশ্য চড়াও হয়। আর এ ঘটনায় তিনি বরিশাল বিজ্ঞ এক্সিকিউটিভ ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে ওই অভিযোগ দায়ের করেছেন। যার এমপি মামলা নং ৩২/২০২১ (মেহেন্দিগঞ্জ) কিন্তু স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ওই দিন তাদের মধ্যে হুমকিতো দূরের কথা কোনো ঘটনাই ঘটেনি।
স্থানীয় জাহের গোলদার বলেন, তিনি খবর পেয়ে গ্রামের কয়েকজন মুরব্বিয়ানকে জিজ্ঞাসা করলে এর কোনো সত্যতা পাননি । এমনকি ওই মামলার ৩নং স্বাক্ষি বাদীর ভাগিনা জাকির সরদার বলেন সেদিন ঘটনাস্থলে তিনি উপস্থিত ছিলেন না, এমনকি স্বচোখে এমন কোনো ঘটনা দেখেননি। ৪নং স্বাক্ষী ইমাম হোসেন বলেন, সেদিন এমন কোন ঘটনাই ঘটেনি, এমন কি তিনি যে মামলার স্বাক্ষী তাও তিনি জানেন না। স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, গত বছর মার্চে বিদ্যুৎ সংযোগ অবৈধভাবে নেওয়া নিয়ে উভয়পক্ষের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছিল। এ ঘটনায় গত ২৩/০৩/২০২০ রফিকুল ইসলাম কবিরাজ বাদী হয়ে সাজাহান রাঢ়ীসহ তার পরিবারের ৬জনের বিরুদ্ধে মেহেন্দিগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে বিবাধি সাজাহান রাঢ়ী বলেন, আমাদেরকে হয়রানি করার লক্ষে এমন কল্পকাহিনী সাজিয়ে অসত্য তথ্য উপাত্ত দিয়ে মামলা করে যাচ্ছেন বাদী রফিক কবিরাজ। এ বিষয়ে বাদী রফিক কবিরাজ বলেন, আমার স্বাক্ষীরা ভয় পেয়ে সত্য কথা বলছে না তবে বিরোধের বিষয়ে বলেন, বিবাধিদের জমির উপর দিয়ে একটি বিদ্যুৎ সংযোগ নেওয়াকে কেন্দ্র করে ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here