ঢাকা-মাওয়া সড়কে কোরিয়ান স্মার্ট সিটি স্থাপন চুক্তি অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে

0
149

নিজস্ব প্রতিবেদক : বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ডিজিটাল বাংলাদেশ প্রতিনিয়ত বদলে যাচ্ছে। বহির্বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলার জন্য দেশে বড় আকারের মেগাপ্রজেক্ট তৈরি করা হয়েছে।

এ লক্ষ্যে আমরা কোরিয়ায় বিশ্বের অনেক দেশে বড় আকারের প্রকল্প বাস্তবায়নের লক্ষ্যে বিভিন্ন প্রকল্প পরিচালনা করছি। কোরিয়া সিটি স্মার্ট সিটি হল বিদ্যমান স্মার্ট সিটি এবং ইএসজি, একটি পরিবেশ-ভিত্তিক বৈশ্বিক কৌশল এটি শহুরে নকশার ধারণার উপর ভিত্তি করে প্রচার করা হবে এবং ইপি ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড দ্বারা বিকাশ করা হবে, যা ইপি হোল্ডিংস, ভারত, বাংলাদেশ এবং কোরিয়া এবং বাংলাদেশের একটি পরিবেশ বান্ধব কোম্পানির যৌথ উদ্যোগ।কোরিয়ান আর্কিটেকচারাল ডিজাইন কোম্পানি ডঙ্গিল আর্কিটেকচার অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং-এর সাথে ঢাকা-মাওয়া রোডে আরবান ডিজাইন এবং ডিজাইন মাস্টার প্ল্যান তৈরি করা হবে। বাংলাদেশে কেনাবেচা সাইট

মঙ্গলবার, 08 নভেম্বর, 2022 তারিখে, গুলশান 2 হোটেল বেঙ্গল ব্লুবেরিতে সন্ধ্যা 6 টায় একটি জাঁকজমকপূর্ণ পরিবেশে স্বাক্ষর অনুষ্ঠানটি অনুষ্ঠিত হয়েছে বলে জানা গেছে।চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইপি হোল্ডিং করপোরেশনের চেয়ারম্যান জেফরি জিহওয়ান ইউন।

বর্তমানে ইপি ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের ভাইস প্রেসিডেন্ট একিউএম আইয়ুব আলী, নির্বাহী পরিচালক ড. কামাল হোসেন, ইপি হোল্ডিং বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও ইপি ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড ডেপুটি ব্যবস্থাপনা পরিচালক কাজী সাইফুল করিম, ইপি ইন্ডাস্ট্রিজের উপ-পরিচালক শামসুল আলম, ইপি ইন্ডাস্ট্রিজের ডেপুটি ম্যানেজিং ডাইরেক্টর ও প্রজেক্ট ম্যানেজার হো বং ক্যাং, মার্কেটিং ডিরেক্টর আলহাজ্ব লায়ন খান আকতারুজ্জামানসহ সর্বস্তরের মানুষ।এ সময় অতিথিরা বলেন, বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো কোরিয়ান পরিবেশবান্ধব স্মার্ট সিটি নির্মাণের কাজ শুরু হওয়ায় ঢাকা-মাওয়ার শৈলপুর মৌজা সাইটের ৫১৭ বর্গমিটারের ওপর আধুনিকায়নের জন্য বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধা সম্বলিত একটি আধুনিক কোরিয়ান স্মার্ট সিটি নির্মাণ করা হবে রাস্তা, আবাসন প্রকল্প। বাংলাদেশের মানুষ উপকৃত হবে।