বান্দরবানে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় চেয়ারম্যান হচ্ছেন ৩ জন

0
272

আবুবকর ছিদ্দীক বান্দরবান জেলা প্রতিনিধিঃসপ্তম ধাপে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বান্দরবান সদর উপজেলার তিন ইউপিতে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন। কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী না থাকায় বিনা ভোটে নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন এসব প্রার্থী। এতে বান্দরবান সদর উপজেলায় এবারে সর্বপ্রথম রেকর্ড গড়েছে ৭ম ধাপে ইউপি নির্বাচনে।

তারা হলেন— সদর উপজেলার ৩নং সদর ইউনিয়নে নৌকা প্রার্থীর অংসাহ্লা মারমা, ১নং রাজবিলা ইউনিয়নে নৌকা প্রার্থীর ক্য অং প্রু মারমা ও ৬নং জামছড়ি ইউনিয়নে নৌকা প্রার্থীর ক্যসিংশৈ মারমা।

রোববার (২৩ জানুয়ারি) সকালে বান্দরবান নির্বাচন কমিশনের রিটার্নিং কর্মকর্তা পরান্টু চাকমা এ তথ্য জানান।

জানা যায়, ৬নং জামছড়ি ইউনিয়নেও সংরক্ষিত মহিলা আসনে ২জন, সদস্য পদে ৭জন ও চেয়ারম্যানসহ বেসরকারিভাবে মোট ১০জন প্রার্থীর বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় বিজয়ী হচ্ছেন। ১নং রাজবিলা ইউনিয়নে সরক্ষিত মহিলা পদে ১জন, সদস্য পদের ৪জন ও চেয়ারম্যানসহ বেসরকারিভাবে মোট ৬ জন এবং ৩নং সদর ইউনিয়নেও সাধারণ সদস্য পদে ২ জন ও চেয়ারম্যানসহ বেসরকারিভাবে মোট ৩ জন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় বিজয়ী হচ্ছেন।

জেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, ৭ম ধাপে ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদের বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ৩ জন চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছে। আজকে সকালে তিন ইউপিতে সংরক্ষিত মহিলা ও সাধারণ সদস্য পদে প্রতীক বরাদ্ধ দেওয়া হয়। এবারে ৭ম ধাপে তিন ইউপি নির্বাচনে সংরক্ষিত মহিলা আসন পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় করবে ১৫ জন ও সাধারণ সদস্য পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় করবে ৩৮ জন।

৭ম ধাপে ইউপি নির্বাচনকে সামনে রেখে তিন ইউপিতে মোট ভোটার রয়েছে ১৪ হাজার ৮শত ৩০জন। তারমধ্যে মহিলা ভোটার হয়েছে ৭ হাজার ১৮২ জন এবং পুরুষ ভোটার রয়েছে ৭ হাজার ৬৪৮ জন।

বান্দরবান নির্বাচনে কমিশনে রিটার্নিং কর্মকর্তা পরান্টু চাকমা বলেন, এবার ৭ম ধাপের ইউপি নির্বাচনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় তিনজন জয় লাভ করেছেন ও তিন ইউনিয়নে সংরক্ষিত মহিলা ও সদস্য পদে আসন মিলে ১৬ জন জয়লাভ করেছেন। আজকে প্রতীক বরাদ্ধ শেষে যে যার মত প্রচারণা করতে পারবেন।